বলিউড অভিনেত্রী তনুশ্রী দত্তের হাত ধরেই ভারতে #মিটু আন্দোলন বিস্তার করেছিল। এবার ওই তনুশ্রীর সাফল্যের মুকুটে যুক্ত হচ্ছে আরও একটি পালক। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের হার্ভার্ড বিজনেস স্কুলে বক্তৃতা করার ডাক পেলেন তিনি। ইনস্টাগ্রামে নিজেই সে খবর জানালেন অনুরাগীদের।

শনিবার ইনস্টাগ্রামে তনুশ্রী লেখেন, আগামী ১৬ ফেব্রুয়ারি বস্টনের হার্ভার্ড বিজনেস স্কুলে ইন্ডিয়া কনফারেন্স-২০১৯ রয়েছে। স্নাতকস্তরের পড়ুয়ারা ওই অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে। তাদের কাছ থেকে আমন্ত্রণ পেয়েছি। হার্ভার্ড বিজনেস স্কুল ও হার্ভার্ড কেনেডি স্কুলে বক্তৃতা করব।

পডুয়াদের উদ্যোগে প্রতিবছরই হার্ভার্ডে ইন্ডিয়া কনফারেন্স অনুষ্ঠিত হয়। এ বছর সেখানে হাজির থাকবেন সমাজকর্মী অরুণা রায়, সাংবাদিক বরখা দত্ত, চিত্র পরিচালক এস এস রাজামৌলি এবং রাজনীতিক আসাদউদ্দিন ওয়েইসি। তাদের সঙ্গেই মঞ্চে হাজির থাকবেন তনুশ্রী।

২০০৩ সালে মিস ইন্ডিয়া খেতাব জিতে গ্ল্যামার দুনিয়ায় প্রবেশ তনুশ্রী দত্তের। তার পর একাধিক হিট ছবি উপহার দিয়েছেন তিনি। কিন্তু আচমকাই বলিউড থেকে গায়েব হয়ে যান তিনি। গতবছর আমেরিকা থেকে দেশে ফিরলে জীবনটাই পাল্টে যায় তার।

এর আগে ২০০৮ সালে একটি ছবির শুটিং চলাকালীন অভিনেতা নানা পটেকর তাকে হেনস্থা করেছিলেন বলে অভিযোগ তুলেছিলেন তনুশ্রী। সেই সময় প্রভাবশালী নানার বিরুদ্ধে তার এই অভিযোগ কানে তোলেনি কেউ।

কিন্তু গতবছর নতুন করে বিষয়টি নিয়ে ঝাঁপিয়ে পড়লে, গোটা দেশ তার সমর্থনে এগিয়ে আসে। তাকে দেখে অনুপ্রাণিত হয়ে আরও অনেকেই নিজেদের ভয়াবহ অভিজ্ঞতার কথা তুলে ধরেন।

বলিউডে #মিটু আন্দোলন এখনও জারি। তবে তনুশ্রী ফিরে গিয়েছেন আমেরিকায়।  অভিনয়ে আর ফেরার ইচ্ছা নেই বলে জানিয়ে দিয়েছেন তিনি।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here