রাত গড়িয়ে সকাল শুরুর আগে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ওদেরই মাটিতে অধরা এক জয়ের খোঁজে ৩ ম্যাচ টেস্ট সিরিজের প্রথমটাতে মাঠে নামবে বাংলাদেশ দল। ওয়ানডে সিরিজে ধবল ধোলাইয়ের পর সামনে এবার নতুন চ্যালেঞ্জ টাইগারদের সামনে। সেই চ্যালেঞ্জটা বেশ ভালোভাবেই নিচ্ছে অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের দল। প্রথম ম্যাচ খেলতে নামার আগে রিয়ার জানালেন, পাঁচ দিনের ম্যাচে মাঠে নামার জন্য নিজেদেরকে মানসিকভাবে তৈরি করেছে সফরকারীরা।

ইনজুরির কারণে আগেই ছিটকে গেছেন এই ফরম্যাটের নিয়মিত অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। দলের সঙ্গে থাকলেও চোটের জন্য আগামীকাল মাঠে নামার সম্ভাবনা নেই আরেক অভিজ্ঞ ক্রিকেটার মুশফিকুর রহিমেরও। একেতো নিউজিল্যান্ডের মত বৈরি কন্ডিশনে হারের বৃত্তে ঘুরপাক খাচ্ছে দল, তার উপর দলে এমন চোটের প্রকোপ। সবেমিলে টেস্ট সিরিজটাও যে সুখকর হবে না লাল-সবুজের প্রতিনিধিদের জন্য, তা কিছুটা আঁচ করার যায়।

তবে রঙিন পোশাক ছেড়ে সাদাটা গায়ে চাপিয়ে একমাত্র প্রস্তুতি ম্যাচে কিছুটা হলেও নিজেদের প্রমান করেছেন বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানরা। সাকিবের না থাকাতে দলের দায়িত্ব পাওয়া অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদও মনে করেন, এখন শুধু নিজেদের তৈরি হওয়ার সময়, কন্ডিশন সম্পর্কে ধারণা হয়ে গেছে এতদিনে।

রিয়াদ বলেন, ‘সব সময়ই একটা চ্যালেঞ্জ থাকে দেশের বাইরের কন্ডিশনে আমরা কেমন করি। এমন কন্ডিশনে আমরা টেস্ট ম্যাচ জিততে পারবো কিনা, সবার ভেতরেই এই সংশয় থাকে। তবে অধিনায়ক বা ক্রিকেটার হিসেবে আমি মনে করি খেলোয়াড়দের এসব বিষয়গুলো কাজ করে না। আমার মনে হয়, প্রতিপক্ষের বোলারদের সম্পর্কে আমাদের এখন একটা ধারণা হয়েছে, এখন কথা হচ্ছে আমরা নিজেদের কিভাবে তৈরি করতে পারি। আমরা মানসিকভাবে নিজেদের তৈরি করেছি।’

একই সাথে তিনি আরও যোগ করেন, ‘সাকিব আর মুশফিকের মত ক্রিকেটার না থাকা দলের জন্য অনেক বড় ক্ষতি। তারা আমাদের দলের গুরুত্বপূর্ণ অংশ। কিন্তু যারা তাদের পরিবর্তে দলে সুযোগ পাবে, তাদেরকেও দুহাত ভরে অভিজ্ঞতা নিতে হবে ও নিজেদের প্রমান করতে হবে।’

প্রসঙ্গত, তিন ম্যাচ টেস্ট সিরিজের প্রথম ম্যাচে বাংলাদেশ সময় আগামীকাল (বৃহস্পতিবার) ভোর ৪টায় মাঠে নামবে দুই দল নিউজিল্যান্ড-বাংলাদেশ।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here