পাকিস্তান-ভিত্তিক যেসব সন্ত্রাসী গোষ্ঠী দেশের বাইরে জঙ্গি হামলা চালায় তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়ার হুমকি দিয়েছেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। পূর্ব ও পশ্চিমের দুই প্রতিবেশী দেশ ভারত ও পাকিস্তানের সামরিক বাহিনীর জওয়ানদের ওপর একই ধরনের দু’টি শক্তিশালী হামলা হওয়ার পর এ হুমকি দিলেন ইমরান খান।

তিনি শুক্রবার পাকিস্তানের দক্ষিণাঞ্চলীয় ‘থার’ শহরে এক জনসভায় বলেন, তার সরকার বিদেশে সন্ত্রাসী হামলা চালানোর জন্য পাকিস্তানের ভূমি ব্যবহার করতে দেবে না। ইমরান খান আরো বলেন, “আমরা আমাদের দেশে আর কোনো সন্ত্রাসী গোষ্ঠীকে তৎপরতা চালানোর অনুমতি দেব না।”

গত ১৩ ফেব্রুয়ারি ইরানের সিস্তান-বালুচিস্তান প্রদেশে ইসলামি বিপ্লবী গার্ড বাহিনী- আইআরজিসি’র জওয়ানদের বহনকারী একটি বাসে শক্তিশালী গাড়িবোমা হামলায় ২৭ জওয়ান নিহত ও ১৩ জন আহত হন। পরবর্তীতে তদন্তে দেখা যায়, পাকিস্তানে নাগরিক হাফিজ মোহাম্মাদ আলী বিস্ফোরক ভর্তি গাড়িটি চালাচ্ছিল। হামলায় ওই সন্ত্রাসীও নিহত হয়।

ইরানে ওই হামলার একদিন পর ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মিরে ভারতীয় আধা সামরিক বাহিনী সিআরপিএফ জওয়ানদের বহনকারী একটি বাসে ঠিক একই কায়দায় চালানো এক গাড়িবোমা হামলায় ৪৪ সিআরপিএফ জওয়ান নিহত হন।

ওই দুই হামলার জের ধরে প্রতিবেশী দু’টি দেশের সঙ্গে পাকিস্তানের সম্পর্কের অবনতি হয়। বিশেষ করে ভারতের সঙ্গে পাকিস্তানের সম্পর্কে চরম উত্তেজনা তৈরি হয়।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here