নতুন কোচ উলে গুনার সুলশারের নেতৃত্বে বেশ দাপটের সঙ্গেই পথ চলছিল ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। কিন্তু শনিবার উলভারহ্যাম্পটন ওয়ান্ডারার্সের বিপক্ষে হেরে অঘটনের শিকার হয়ে এফএ কাপ থেকে বিদায় নিয়েছে দলটি।

উলভারহ্যাম্পটন ওয়ান্ডারার্সের মাঠে শনিবার রাতে কোয়ার্টার-ফাইনালের লড়াইয়ে ২-১ গোলে হারে ম্যানইউ। এরফলে এ প্রতিযোগিতাটির দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ১২ বারের চ্যাম্পিয়নরা ছিটকে গেল।

প্রতিপক্ষের মাঠে শনিবার শুরু থেকেই পরিকল্পনামাফিক ফুটবল খেলে ম্যানইউ। এগিয়ে যাওয়ারও বেশ কয়েকবার সুযোগ পেয়েছিল দলটি। কিন্তু ফরোয়ার্ডদের ব্যর্থতায় পারেনি অতিথিরা। এদিকে
স্বাগতিকরাও কয়েকটি ভালো সুযোগ তৈরি করে। কিন্তু তারাও পায়নি জালের দেখা। যে কারণে গোল শুন্য থেকেই বিরতিতে যেতে হয় উভয় দলের।

বিরতির পর শুরুতেই পেছনে পড়তে পারতো ম্যানইউ। কিন্তু ভাগ্য সঙ্গে থাকায় ৫৪তম মিনিটে  গোলরক্ষকের দৃঢ়তায় বেঁচে যায় অথিথিরা। তবে ৭০তম মিনিটে আর স্বাগতিকদের আটকাতে পারেননি ম্যানইউ গোলরক্ষক। ডি-বক্সে ইউনাইটেডের খেলোয়াড়রা বল বিপদমুক্ত করতে ব্যর্থ হলে পেনাল্টি স্পটের কাছ থেকে ডান পায়ের শটে উলভারহ্যাম্পটনকে এগিয়ে দেন হিমেনেস। এর ছয় মিনিট পর দারুণ এক প্রতি-আক্রমণে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন দিয়োগো জোতা। তবে যোগ করা সময়ে ব্যবধান কমান মার্কাস র‌্যাশফোর্ড। আট গজ দূর ডান পায়ের শটে জালে খুঁজে নেন তিনি। তবে সমতায় ফেরার মতো আর সুযোগ পাননি তারা। যে কারণে ১৯৫৯-৬০ মৌসুমের পর এফএ কাপের সেমিফাইনালে ওঠার আনন্দে মাতে ওয়ানডারার্স।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here