অ্যাঙ্গেল ডি মারিয়া নিজে করলেন দুই গোল। এর একটি আবার ৩০ গজ দূর থেকে ফ্রি-কিকে। আর্জেন্টাইন উইঙ্গার আরো একটি গোল করালেন সতীর্থকে দিয়ে। তার দুর্দান্ত পারফরম্যান্সে মার্সেইকে ৩-১ গোলে হারিয়ে ২০ পয়েন্ট এগিয়ে থেকে লিগ ওয়ানের শিরোপা ধরে রাখার আরো কাছে চলে গেছে টমাস টুখেলের দল।

এই জয়ে ২৮ ম্যাচে ২৫ জয় ও দুই ড্রয়ে ৭৭ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে রয়েছে তারা। ২০ পয়েন্ট কম নিয়ে দ্বিতীয়স্থানে আছে এক ম্যাচ বেশি খেলা লিলে।

নিজেদের মাঠে ম্যাচের শুরুতেই এগিয়ে যেতে পারত পিএসজি। জালে বল জড়িয়েছিলেন দি মারিয়া। ভিএআর এর সহায়তা নিয়ে অফসাইডের কারণে গোলটি বাতিল করে দেন রেফারি।

এরপর অতিথিদের রক্ষণভাগে আর ফাটল ধরাতে পারছিল না পিএসজি। প্রথমার্ধের যোগ করা সময়ের দ্বিতীয় মিনিটে দলকে এগিয়ে নেন এমবাপে। ডি মারিয়ার দ্রুত গতির পাস ডি-বক্সের মাঝে পেয়ে ডান পায়ের শটে মুহূর্তেই জালে বল জড়ান ফরাসি এই ফরোয়ার্ড।

দ্বিতীয়ার্ধের প্রথম মিনিটেই ম্যাচে সমতা ফেরায় মার্সেই। আর্জেন্টাইন মিডফিল্ডার লুকাস ওসকাম্পোসের পাস পেয়ে প্লেসিং শটে গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন ভালেহে জারমেইন।

৫৫তম মিনিটে দি মারিয়া গোলের দেখা পেলে ২-১ ব্যবধানে এগিয়ে যায় পিএসজি। জার্মান ডিফেন্ডার টিলো কেহরের পাস থেকে গোলটি করেন আর্জেন্টাইন এই উইঙ্গার।

৬২তম মিনিটে ফরাসি গোলরক্ষক লালকার্ড দেখে মাঠ ছাড়া হলে দশ জনের দলে পরিণত হয় মার্সেই। চার মিনিটের মধ্যে নিজের দ্বিতীয় ও দলের তৃতীয় গোল করেন দি মারিয়া।

যোগ করা সময়ের চতুর্থ মিনিটে আরো একটি গোল পেতে পারত পিএসজি। এমবাপের নেওয়া পেনাল্টি শট রুখে দেন অতিথি দলের বদলি নামা গোলরক্ষক।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here