নিউজিল্যান্ডে সন্ত্রাসী হামলায় নিহত গজারিয়া ইউনিয়নের জয়পুরা গ্রামের  জাকারিয়া ভূঁইয়ার বাড়িতে চলছে  শোকের মাতম।

গত শুক্রবার নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চ শহরে আল নূর মসজিদে জুমার নামাজ পড়তে গিয়ে স্বেতাঙ্গ সন্ত্রাসীর গুলিতে নিহত হয় রিনা আক্তারের স্বামী জাকারিয়া ভূঁইয়া। মৃত্যুর খবর শুনে তার স্ত্রী রিনা আক্তার এখন শোকে স্তব্ধ হয়ে গেছেন।

২০১৬ সালে ৮ আগস্ট বিয়ে হয়েছিল তাদের। বিয়ের ১৭ দিনের মাথায় নিউজিল্যান্ডে পাড়ি দেয় স্বামী জাকারিয়া ভূঁইয়া। প্রায় আড়াই বছর পর আগামী ঈদুল ফিতরে বাড়ি ফেরার কথা ছিল জাকারিয়ার। দীর্ঘ প্রতিক্ষার পর স্বামী দেশে ফিরবে ভেবে অপেক্ষা করছিলেন তিনি। কিন্তু তার এ অপেক্ষা এখন চিরদিনের অপেক্ষা হয়েই থেকে গেল।

সরেজমিনে জাকারিয়ার গ্রামের বাড়ি গিয়ে দেখা যায়, বারবার স্বামীর ছবিটি বুকে জড়িয়ে ধরে হাউমাউ করে কেঁদে উঠছেন আর চিৎকার করে বলছেন, আমার স্বামীকে তোমরা এনে দেও। এদিকে মেয়েকে শান্তনা দিতে ছুটে এসেছেন তার বাবা আব্দুল আলী ও মা মজিদা বেগম।

রিনা আক্তারের বাবা আব্দুল আলী কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলেন, সংসার জীবনের শুরুতেই মেয়ের জীবনে এত বড় ক্ষতি হয়ে যাবে তা কখনো ভাবিনি। সরকার যেন দ্রুত জাকারিয়ার লাশটি  দেশে আনার ব্যবস্থা করে দেয়।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here