চ্যাম্পিয়নস লিগের শেষ আটে ওঠার লড়াইয়ে অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদের বিপক্ষে দ্বিতীয় লেগে দুর্দান্ত হ্যাটট্রিক করে জুভেন্টাসকে শেষ আটে পৌঁছে দেন পর্তুগিজ তারকা ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। তবে হ্যাটট্রিকের পর অশালীন অঙ্গভঙ্গি করে বসেন জুভেন্টাসের এই ফরোয়ার্ড। যে কারণে আগেই জানা গেছে রোনালদো শাস্তি পাচ্ছেন। উয়েফা জানিয়েছে, আগামী ২১ মার্চ এই বিষয়ে রায় জানাবে উয়েফার আচরণবিধি কমিটি।

শেষ ষোলোর প্রথম লেগে জুভেন্টাসের বিপক্ষে ঘরের মাঠে ২-০ গোলে অ্যাথলেটিকো জয় পাওয়ার পর অ্যাথলেটিকোর কোচ দিয়েগো সিমিওনে অশালীন অঙ্গভঙ্গি করে জয় উদযাপন করেন। তবে ঘটনার পর ক্ষমা চেয়ে নেন সিমিওনে। কিন্তু তকে ২০ হাজার ইউরো জরিমানা করে উয়েফা।

প্রথম লেগে হারের পর দ্বিতীয় লেগে হ্যাটট্রিক করে সিমিওনের মতো করেই অশালীন অঙ্গভঙ্গি করেন রোনালদো। সেই ম্যাচে ৩-০ গোলের জয়ে চ্যাম্পিয়নস লিগের শেষ আটে পৌঁছে যায় জুভিরা। এরপর রোনালদোর বিপক্ষে লিখিত অভিযোগ জানানোর কথা বলেন সিমিওনে।

এরপর ইতালির শীর্ষস্থানীয় গণমাধ্যম গাজেত্তা দেল্লো স্পোর্ত জানায়, রোনালদোর উদযাপন নিয়ে আরও তদন্ত করবে উয়েফা কর্তৃপক্ষ। যদি অ্যাথলেটিকো মাদ্রিদের সমর্থক কিংবা কোচকে উদ্দেশ্য করে এমনটা করে থাকেন তাহলে নিষেধাজ্ঞায় পড়তে পারেন রোনালদো। আর প্রতিশোধমূলক আচরণ প্রমাণ হলে নিষেধাজ্ঞার পাশাপাশি জরিমানাও গুণতে হতে পারে রোনালদোকে।

চ্যাম্পিয়ন্স লিগের কোয়ার্টার ফাইনালে জুভেন্টাসের প্রতিপক্ষ নেদারল্যান্ডসের ক্লাব আয়াক্স। এই দলটিই আবার বিদায় করে দিয়েছে গত তিন মৌসুমে টানা চ্যাম্পিয়ন রিয়াল মাদ্রিদকে। উয়েফার এই রায়ের উপর নির্ভর করছে, জুভেন্টাস-আয়াক্স ম্যাচে রোনালদোকে পাওয়া যাবে কিনা।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here