চেন্নাইকে সরিয়ে সাময়িকভাবে লিগ টেবিলের শীর্ষস্থান দখল করেছিল দিল্লি ক্যাপিটালস৷ ঘরের মাঠে দিল্লিকে হারিয়ে এক নম্বরের সিংহাসন ছিন্নিয়ে নিল সিএসকে৷ চিপকে একতরফা লড়াইয়ে শ্রেয়স আইয়ারদের ৮০ রানের বিশাল ব্যবধানে পরাজিত করে ধোনিবাহিনী৷

বুধবার আইপিএলের একমাত্র খেলায় দিল্লি দাঁড়াতেই পারেনি চেন্নাইয়ের সামনে। সুরেশ রায়নার হাফসেঞ্চুরির পর ধোনির ঝড়ো ব্যাটিংয়ে নির্ধারিত ২০ ওভারে চেন্নাই ৪ উইকেট হারিয়ে স্কোরে জমা করে ১৭৯ রান। এই লক্ষ্যে খেলতে নেমে ইমরান তাহির ও রবীন্দ্র জাদেজার স্পিন জাদুতে দিল্লি ১৬.২ ওভারে অলআউট মাত্র ৯৯ রানে।

চেন্নাইয়ের মাঠে লড়াইটা ছিল আইপিএলের পয়েন্ট টেবিলের এক ও দুই নম্বরের। যে লড়াইয়ে দিল্লিকে হারিয়ে শীর্ষস্থানটা সুসংহত করেছে স্বাগতিকরা। ১৩ ম্যাচ শেষে ১৮ পয়েন্ট চেন্নাইয়ের, আর সমান ম্যাচে ১৬ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে দিল্লি।

টস হেরে ব্যাটিংয়ে নামা চেন্নাই শুরুতে শেন ওয়াটসনকে (০) হারালেও পথে ফেরে ফাফ দু প্লেসি ও রায়নার ব্যাটে। দু প্লেসি ৪১ বলে করেন ৩৯, আর রায়না ৩৭ বলে ৮ চার ও ১ ছক্কায় করে যান ৫৯ রান। তবে চেন্নাইয়ের স্কোর ১৭৯ হওয়ার পেছনে সবচেয়ে বড় অবদান ধোনির। ম্যাচসেরার পুরস্কার জেতা এই ব্যাটসম্যান ২২ বলে ৪ বাউন্ডারি ও ৩ ছক্কায় অপরাজিত থাকেন ৪৪ রানে। ১০ বলে ২ চার ও ২ ছক্কায় জাদেজা করেন ২৫ রান।

১৮০ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে চেন্নাইয়ের স্পিন বিষে নীল দিল্লি। ইমরান তাহিরের সামনে সবচেয়ে বেশি পরীক্ষা দিতে হয়েছে তাদের ব্যাটসম্যানদের। প্রোটিয়া স্পিনার ৩.২ ওভারে মাত্র ১২ রান দিয়ে পেয়েছেন ৪ উইকেট। আর জাদেজা ৩ ওভারে মাত্র ৯ রান দিয়ে নিয়েছেন ৩ উইকেট। তাদের বিষাক্ত স্পিনের সামনে দিল্লির সর্বোচ্চ স্কোরার অধিনায়ক শ্রেয়াস আইয়ার, ৩১ বলে তার রান ৪৪।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here