আইপিএলে সুপার ওভার রোমাঞ্চের জন্ম দিয়েছিলো সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। নির্ধারিত ওভারে তারা ম্যাচটি টাই করার কৃতিত্ব দেখালেও সুপার ওভারে মুম্বাইয়ের কাছে ধরাশায়ী কেন উইলিয়ামসনরা। মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স সুপার ওভারে জিতে নিশ্চিত করেছে প্লে অফ। চেন্নাই সুপার কিংস ও দিল্লি ক্যাপিটালসের পর প্লে অফ নিশ্চিত করলো মুম্বাই।

সুপার ওভারে প্রথম ব্যাটিং করে মাত্র ৮ রান তোলে হায়দরাবাদ৷ বুমরাহের প্রথম চার বলে দু’ উইকেট হারানোয় শেষ দু’টি বল খেলতে পারেনি সানরাইজার্স৷ জয়ের জন্য মুম্বইয়ের টার্গেট ৬ বলে ৯ রান৷ ক্রিজে হার্দিক পান্ডিয়া ও কাইরন পোলার্ড৷ বল হাতে রশিদ খান৷ প্রথম বল ছক্কা হাঁকান পান্ডিয়া৷ মাত্র ৩ বলেই ম্যাচ জিতে নেয় মুম্বই ইন্ডিয়ান্স৷

 টস জিতে মুম্বাইয়ের ৫ উইকেটে করা ১৬২ রানকে ছুঁয়ে ফেলেছিলো সানরাইজার্স। শ্বাসরূদ্ধকর ম্যাচে পরে পেন্ডুলামের মতো ঝুলছিলো ম্যাচের ভাগ্য। ১৯তম ওভার শেষে সানরাইজার্সের প্রয়োজন ছিলো ৬ বলে ১৭ রান। তখন ক্রিজে মনীষ পান্ডে ও মোহাম্মদ নবী।

এ দুজনের ঝড়ো গতির ব্যাটিংই আশা বাঁচিয়ে রাখে হায়দরাবাদের। শেষ ওভারে দুটি সিঙ্গেল নেন নবী ও পান্ডে। তৃতীয় বলে নবী ৬ মেরে লক্ষ্যটাকে আরও কাছে নিয়ে আসলে চতুর্থ বলে তাকে ৩১ রানে ফিরিয়ে কিছুটা স্বস্তি ফিরিয়েছিলো মুম্বাই। কিন্তু হার্দিক পান্ডিয়ার শেষ দুই বলে দুই রান ও এক ছক্কায় ৬ উইকেট হারিয়েও ম্যাচটি টাই করেন পান্ডে। তার ৪৭ বলে করা ৭১ রানের বিধ্বংসী ইনিংসে ভর করেই ম্যাচ টাই করে তারা্। যাতে ছিলো ৮টি চার ও দুটি ছয়।

তার আগে কুইন্টন ডি ককের ৫৮ বলে করা ৬৯ রানে ভর করে ৫ উইকেটে ১৬২ রান তুলে মুম্বাই। সুপার ওভারে বরং ৮ রান তুলতে পারে সানরাইজার্স। বিপরীতে ৩ বল খেলে সহজেই জয়ের বন্দরে নোঙর ফেলে মুম্বাই। ম্যাচসেরা জসপ্রিত বুমরাহ।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here