মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরানের স্টিল ও খনি খাতের ওপর নতুন করে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছেন। এর মাধ্যমে ইরানের রাজস্ব খাতকে আরো কঠিন অবস্থার মুখে ফেলে দেয়ার পদক্ষেপ নিয়েছেন তিনি।

বুধবার এক বিবৃতিতে ট্রাম্প বলেন, “আজকের এ পদক্ষেপের লক্ষ্য হচ্ছে শিল্প পর্যায়ে ধাতু রপ্তানি করে ইরান তার রাজস্ব খাতে যে ১০ শতাংশ অর্থ উপার্জন করে তা বন্ধ করা; একইসঙ্গে অন্য দেশগুলোকে সতর্ক করা যাতে তারা বুঝতে পারে যে, ইরানি ধাতু রপ্তানির ক্ষেত্রে তাদের বন্দর ব্যবহার করতে দিলে তা সহ্য করা হবে না।”

ট্রাম্প আরো বলেছেন, ইরান তার আচরণে মৌলিক পরিবর্তন না আনলে তেহরানের বিরুদ্ধে আরো ব্যবস্থা নেয়া হতে পারে। এর পাশাপাশি ট্রাম্প নতুন চুক্তি করার জন্য ইরানের সঙ্গে আলোচনায় বসার আগ্রহ ব্যক্ত করেছেন। তিনি বলেছেন, “আমি আশা করি একদিন ইরানি নেতাদের সঙ্গে নতুন চুক্তির বিষয়ে আলাচনায় বসতে সক্ষম হব।”

মার্কিন অর্থ মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, স্টিল ও খনি খাতের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হলেও সংশ্লিষ্ট পক্ষগুলো লেনদেনের জন্য ৯০ দিন সময় পাবে।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here