দুজনেই শহরে থাকেন। স্রোত ভালোবাসে রুপাকে। রূপার বাবা-মা নেই। চাচা-চাচীর সংসারে তার বেড়ে ওঠা। রূপাকে বিয়ে দেয়ার জন্য তার চাচা-চাচী উঠেপড়ে লাগে। তাই স্রোত তার বাবা-মাকে না জানিয়েই হুট করে বিয়ে করে ফেলে রূপাকে। একদিন স্রোতের বাবা খুব অসুস্থ হয়ে পড়লে বাড়িতে যেতে হয় তাকে। অসুস্থ বাবা স্রোতের জন্য বন্ধুর মেয়ে স্বর্ণকে ঠিক করে রাখে। অসুস্থ বাবাকে কোনোভাবে না করতে পারেনা স্রোত।

বাধ্য হয়ে স্বর্ণকে বিয়ে করতে হয়। গল্প মোড় নেয় ভিন্নদিকে। শেষ পর্যন্ত স্রোত আসলে কাকে নিয়ে সংসার করবে? এমন প্রশ্ন নিয়েই নির্মিত হয়েছে ঈদের বিশেষ নাটক ‘ছেলেটির কোনো দোষ ছিলো না’।

হেলেন বদরুদ্দীনের মূলগল্পে এটি চিত্রনাট্য করেছেন শিশির আহমেদ। নাটকটিতে স্রোতের চরিত্রে ইরফান সাজ্জাদ, রূপার চরিত্রে শবনম ফারিয়া ও স্বর্ণর চরিত্রে অভিনয় করেছেন নুসরাত জান্নাত রুহী।

নাটকটি নিয়ে ইরফান সাজ্জাদ বলেন, ‘নাটকটিতে সম্পর্ক নিয়ে ফ্যামিলি ক্রাইসিস দেখানো হয়েছে। গল্পটি ভালো। মজা পাবেন দর্শকরা’। নাটকটি দর্শকদের ভালো লাগবে বলে প্রত্যাশা শবনম ফারিয়ারও।

ফ্যাক্টর থ্রি সলিউশনস নিবেদিত ও ত্রিধারা প্রযোজিত নাটকটিতে আরো অভিনয় ফখরুল বাশার মাসুম, মিলি বাশার, নরেশ ভূঁইয়া, বৃষ্টি সহ আরো অনেকে।

নাটকটি ঈদের বিশেষ অনুষ্ঠানমালায় একটি বেসরকারি টিভি চ্যানেলে প্রচার হবে।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here