টসে হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারায় আফগানরা। গড়ে ওঠেনি ভালো কোনো জুটি। শেষ দুটি জুটিতে যথাক্রমে ৩৫ ও ৩৩ রান না এলে লজ্জায় পড়তে হতো তাদের। নবীর কল্যাণেই দলটির ইনিংস দেড়শ পেরিয়ে যায়। শেষ ব্যাটসম্যান হিসেবে আউট হওয়ার আগে ৪২ বলে সর্বোচ্চ ৪৪ রান করেন তিনি।

আফগানদের ইনিংসের শুরুর দুই উইকেট নেওয়ার পর শেষটিও নেন আর্চার। প্রতিপক্ষের ৩ ব্যাটসম্যানকে সাজঘরে ফেরাতে তার খরচা ৩২ রানে। আঁটসাঁট বোলিংয়ে রুট সমানসংখ্যক উইকেট নেন ২২ রান দিয়ে। বিশ্বকাপে তার অফ স্পিন প্রয়োজনের মুহূর্তে কাজে আসতে পারে ভেবেই বল তুলে দেওয়া হয়েছিল রুটের হাতে। সে পরীক্ষায় পূর্ণ নম্বর পেয়েছেন তিনি।

জবাবে ১৭.৩ ওভারে ১ উইকেটে ১৬১ রান তুলে জয়ের বন্দরে নোঙর করে ইংলিশরা। উদ্বোধনী জুটিতে মাত্র ৭.২ ওভারে ৭৭ রান যোগ করেন রয় ও জনি বেয়ারস্টো। নবীর শিকার হওয়ার আগে ২২ বলে ৩৯ রান করেন বেয়ারস্টো।

তবে রয়ের তাণ্ডব থামাতে পারেনি কেউ। রুটকে নিয়ে দলকে জিতিয়ে মাঠ ছাড়েন এই ডানহাতি। ৪৬ বলে ১১ চার ও ৪ ছয়ে ৮৯ রানে অপরাজিত থাকেন রয়। রুটের ব্যাট থেকে আসে ২৯ রান। তারকা আফগান লেগ স্পিনার রশিদ ৫ ওভারে ৩২ রান দিয়ে থাকেন উইকেটশূন্য।

জয়ের পাশাপাশি ইংলিশদের স্বস্তি দিয়েছে অধিনায়ক ইয়ন মরগ্যানের ফেরাটা। চোট থেকে সেরে উঠে এ ম্যাচে অধিনায়কত্ব করেছেন তিনি। ওয়ানডে র‍্যাঙ্কিংয়ের এক নম্বর দল ইংল্যান্ডের জন্য সুসংবাদ রয়েছে আরও। অসিদের বিপক্ষে চোটের কারণে মাঠ ছেড়ে যাওয়া পেসার মার্ক উডও ফেরার জন্য তৈরি।

বিশ্বকাপের উদ্বোধনী ম্যাচে আগামী বৃহস্পতিবার (৩০ মে) দক্ষিণ আফ্রিকার মুখোমুখি হবে স্বাগতিক ইংল্যান্ড। ১ জুন অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে খেলবে আফগানিস্তান।

টসে হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারায় আফগানরা। গড়ে ওঠেনি ভালো কোনো জুটি। শেষ দুটি জুটিতে যথাক্রমে ৩৫ ও ৩৩ রান না এলে লজ্জায় পড়তে হতো তাদের। নবীর কল্যাণেই দলটির ইনিংস দেড়শ পেরিয়ে যায়। শেষ ব্যাটসম্যান হিসেবে আউট হওয়ার আগে ৪২ বলে সর্বোচ্চ ৪৪ রান করেন তিনি।

আফগানদের ইনিংসের শুরুর দুই উইকেট নেওয়ার পর শেষটিও নেন আর্চার। প্রতিপক্ষের ৩ ব্যাটসম্যানকে সাজঘরে ফেরাতে তার খরচা ৩২ রানে। আঁটসাঁট বোলিংয়ে রুট সমানসংখ্যক উইকেট নেন ২২ রান দিয়ে। বিশ্বকাপে তার অফ স্পিন প্রয়োজনের মুহূর্তে কাজে আসতে পারে ভেবেই বল তুলে দেওয়া হয়েছিল রুটের হাতে। সে পরীক্ষায় পূর্ণ নম্বর পেয়েছেন তিনি।

জবাবে ১৭.৩ ওভারে ১ উইকেটে ১৬১ রান তুলে জয়ের বন্দরে নোঙর করে ইংলিশরা। উদ্বোধনী জুটিতে মাত্র ৭.২ ওভারে ৭৭ রান যোগ করেন রয় ও জনি বেয়ারস্টো। নবীর শিকার হওয়ার আগে ২২ বলে ৩৯ রান করেন বেয়ারস্টো।

তবে রয়ের তাণ্ডব থামাতে পারেনি কেউ। রুটকে নিয়ে দলকে জিতিয়ে মাঠ ছাড়েন এই ডানহাতি। ৪৬ বলে ১১ চার ও ৪ ছয়ে ৮৯ রানে অপরাজিত থাকেন রয়। রুটের ব্যাট থেকে আসে ২৯ রান। তারকা আফগান লেগ স্পিনার রশিদ ৫ ওভারে ৩২ রান দিয়ে থাকেন উইকেটশূন্য।

জয়ের পাশাপাশি ইংলিশদের স্বস্তি দিয়েছে অধিনায়ক ইয়ন মরগ্যানের ফেরাটা। চোট থেকে সেরে উঠে এ ম্যাচে অধিনায়কত্ব করেছেন তিনি। ওয়ানডে র‍্যাঙ্কিংয়ের এক নম্বর দল ইংল্যান্ডের জন্য সুসংবাদ রয়েছে আরও। অসিদের বিপক্ষে চোটের কারণে মাঠ ছেড়ে যাওয়া পেসার মার্ক উডও ফেরার জন্য তৈরি।

বিশ্বকাপের উদ্বোধনী ম্যাচে আগামী বৃহস্পতিবার (৩০ মে) দক্ষিণ আফ্রিকার মুখোমুখি হবে স্বাগতিক ইংল্যান্ড। ১ জুন অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে খেলবে আফগানিস্তান।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here