বি-টাউনে গুঞ্জন, একসময় সুপারস্টার সালমান খানের সঙ্গে চুটিয়ে প্রেম করেছেন আবেদনময়ী অভিনেত্রী ক্যাটরিনা কাইফ। যদিও সেই সম্পর্কে ছেদ পড়েছে। তবে বিচ্ছেদ হলেও এখনো গভীর বন্ধুত্ব দুজনের। খান পরিবারে অবাধ যাতায়াত ক্যাটরিনার।

যা হোক, সম্প্রতি বিনোদন সংবাদমাধ্যম পিংকভিলাকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে ক্যাটরিনা কাইফ বলেছেন, তিনি সব সমালোচনা গায়ে মাখান না। সালমানের প্রসঙ্গ উঠতেই এ অভিনেত্রী বলেন, ‘সে সবার সঙ্গেই পায়ে ঠোকাঠুকি করে। এটা তার ব্যক্তিত্ব, যা সবাইকে স্বস্তি দেয়। তার চারপাশের সবাই হাস্যোজ্জ্বল থাকে। আমি অবশ্য চুপ থাকি না। আমিও দিয়ে দিই।’

সালমান একবার বলেছিলেন, ক্যাটরিনা তাঁকে ‘ভাইজান’ বলেন ডাকেন না। সে প্রসঙ্গ তুললে ক্যাটরিনা বলেন, ‘অবশ্যই, সে আমার ভাই নয়। সে আমার বন্ধু। আর রসিকতার জন্য সে সুপরিচিত।’

সালমানের সঙ্গে পেশাগত সম্পর্ক নিয়েও কথা বলেন ক্যাটরিনা। তাঁরা দুজন ছয়টি সিনেমা করেছেন। ক্যাটরিনা বলেন, সালমানের সঙ্গে প্রথম ‘ম্যায়নে পেয়ার কিঁয়্যু কিয়া’ করেছিলেন। আর অভিনেতা হিসেবে সেটি ছিল তাঁর তৃতীয় ছবি। নতুন ছিলেন, সেরাটা দেওয়ার চেষ্টা ছিল। ‘পার্টনার’ ছবিতে পেয়েছিলেন সালমান ও গোবিন্দকে, যাঁরা দুজনই দারুণ অভিনেতা।

‘ভারত’ সিনেমা নিয়ে উচ্ছ্বসিত ক্যাটরিনা কাইফ। এই ছবি দিয়ে ফের আলোচনার কেন্দ্রে আসতে চান তিনি। তাঁর সর্বশেষ দুটি ছবি ‘থাগস অব হিন্দোস্তান’ ও ‘জিরো’ বক্স অফিসে তেমন ব্যবসা করতে পারেনি। ‘ভারত’ দিয়ে ঘুরে দাঁড়াবেন, এমনটাই আশা ক্যাটরিনা-ভক্তদের।

আলি আব্বাস জাফর পরিচালিত ‘ভারত’ মুক্তি পাবে এবারের ঈদুল ফিতরে। এ ছবি দিয়ে ক্যাটরিনা কাইফের সঙ্গে পুনর্মিলন হচ্ছে সালমানের। সিনেমাটি দেখার জন্য মুখিয়ে আছেন ভক্তরা। ভারত-এ সালমান-ক্যাটরিনা ছাড়াও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকায় দেখা যাবে দিশা পাটানি, টাবু, নোরা ফাতেহি, সুনীল গ্রোভার, জ্যাকি শ্রফসহ অন্যদের।

দক্ষিণ কোরিয়ার চলচ্চিত্র ‘অ্যান ওডে টু মাই ফাদার’-এর রিমেক ‘ভারত’। ষাটের দশকের সার্কাসের ওপর নির্মিত এ ছবি। একজন সাধারণ মানুষের জীবনকে কেন্দ্র করে ভারতের ইতিহাসও বর্ণিত হবে এই ছবিতে। ৫ জুন পর্দায় উঠবে ছবিটি।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here