ব্রাজিলের মানাউস শহরের চারটি পৃথক কারাগার থেকে ৪২ জন বন্দির লাশ উদ্ধার করেছে কর্তৃপক্ষ। শহরটির একটি কারাগারে গ্যাং সংঘর্ষে ১৫ জন কারাবন্দি নিহত হওয়ার একদিন পর এ ঘটনা ঘটলো। খবর বিবিসি, গার্ডিয়ানের।

ব্রাজিলের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, অ্যামাজোনাস রাজ্যের রাজধানী মানাউসের ওই কারগারগুলোতে নিহতদের অধিকাংশকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে। তারা জানিয়েছে, চারটি ভিন্ন ভিন্ন কারগারে রুটিন পরিদর্শনের সময় ওই ব্যক্তিদের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়।

এই ‘পরিস্থিতি মোকাবিলা’ একটি টাস্কফোর্সও পাঠানো হয়েছে বলে জানিয়েছে কর্মকর্তারা। ব্রাজিলের গ্লোবো নিউজ ওয়েবসাইট জানিয়েছে, সোমবারের ওই ঘটনায় আরও বেশ কয়েকজন কারাবন্দি আহত হয়েছেন।

এর আগে রোববার মানাউসের আনিসিও জোবিম কারাগারে দর্শনার্থীদের জন্য নির্ধারিত সময়ে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। ওই ঘটনায় ১৫ জনের মৃত্যু হয়।

এদিকে ব্রাজিলের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, রোববারের ওই ঘটনায় বন্দিদের ধারালো টুথব্রাশ দিয়ে আঘাত করে ও শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়। কী কারণে ওই সহিংসতার ঘটনা ঘটেছে তার খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছে কর্মকর্তারা।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে একজন কারাবন্দির মা রিও টাইমসকে বলেন, এটা পুরোপুরি বিশৃঙ্খল পরিবেশ ছিল। সবাই দৌড়াদৌড়ি করছিল। সবাই সেলের দরজায় বাড়ি দিচ্ছিল এবং করিডোরে দৌড়াদৌড়ি করছিল।

উল্লেখ্য, ব্রাজিলে প্রায়ই কারাগারে সহিংসতার ঘটনা ঘটে থাকে। দেশটির চরম-ডানপন্থি প্রেসিডেন্ট জেইর বোলসোনারো দেশের কারাগারগুলোর পুরো নিয়ন্ত্রণ নেয়ার এবং আরও কারাগার প্রতিষ্ঠার প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেছেন।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here