দীর্ঘ এক মাস সিয়াম সাধনার পর বুধবার ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনা এবং ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে দেশব্যাপী মুসলমানদের সর্ববৃহৎ ধর্মীয় উৎসব পবিত্র ঈদুল ফিতর উদযাপিত হয়েছে।

এ বছর ঈদুল ফিতরের দিন নির্ধারণ নিয়ে মঙ্গলবার রাতে অনেক বিতর্কের সৃষ্টি হয়। শুরুতে জাতীয় চাঁদ দেখা কমিটি জানায়, দেশের কোথাও শাওয়াল মাসের চাঁদ দেখা যায়নি। পরে দ্বিতীয় বৈঠক শেষে কমিটি তাদের তথ্য সংশোধন করে এবং বুধবার ঈদ উদযাপনের সিদ্ধান্ত নেয়। সকাল থেকে অবিরাম বৃষ্টিপাতের কারণে ঈদের নামাজ আদায় ও উৎসবে বিঘ্ন সৃষ্টি হয়।

ঈদের দিন সাধারণত মানুষ ফুরফুরে মেজাজে বাইরে ঘুরতে বের হলেও এবার বৃষ্টির কারণে ঘরে বসে থাকতে হয়। রাজধানীর অনেক এলাকা বৃষ্টির পানিতে তলিয়ে যায়।

রাজধানী ঢাকায় সকাল ৬টা থেকে ৯টা পর্যন্ত ৩৬.৬ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়।

রাজধানীতে ঈদের প্রধান জামাত হাইকোর্ট প্রাঙ্গণে জাতীয় ঈদগাহ ময়দানে সকাল সাড়ে ৮টায় অনুষ্ঠিত হয়। রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ এতে সর্বস্তরের মানুষের সাথে ঈদের নামাজ আদায় করেন। সেই সাথে বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদে পাঁচটি জামাতের আয়োজন করা হয়।

জাতীয় ঈদগাহ ও জাতীয় মসজিদে পুরুষদের পাশাপাশি নারীদের নামাজে অংশ নেয়ার ব্যবস্থা ছিল।

দিনাজপুরের গোর-এ শহীদ বড় ময়দান এবং কিশোরগঞ্জের শোলাকিয়া ঈদগাহে দেশের দুই বৃহৎ ঈদ জামাত অনুষ্ঠিত হয়েছে। গোর-এ শহীদ বড় ময়দানে ৬ লাখ এবং শোলাকিয়ায় ৫ লাখ মুসল্লি ঈদুল ফিতরের নামাজ আদায় করেছেন বলে আয়োজকদের দাবি। সেই সাথে দেশব্যাপী বিভিন্ন ঈদগাহ, মসজিদ ও খোলা মাঠে ঈদের নামাজ পড়েছেন মুসল্লিরা।

চট্টগ্রামে ঈদের প্রথম ও প্রধান জামাত সকাল ৮টায় জাতীয় মসজিদ জমিয়তুল ফালাহ ময়দানে অনুষ্ঠিত হয়েছে। নামাযে অংশ নেন মন্ত্রী, সিটি মেয়র, গন্যমান্যব্যক্তিবর্গসহ বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষ।

খুলনা টাউন জামে মসজিদে অনুষ্ঠিত ঈদ জামাতে অংশ নেন খুলনা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র তালূকদার আব্দুল খালেক। ময়মনসিংহ মহানগরীর কেন্দ্রিয় আঞ্জুমান ঈদগাহ ময়দানে ঈদের প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত হয়।

সকাল ৮ টায় সিলেটে প্রধান জামায়াত অনুষ্টিত হয় নগরীর শাহী ঈদগাহ ময়দানে। ৯ টায় সিলেটের দরগাহ মাজারস্থ মসজিদে ঈদের জামায়াত আদায় করেন পররাস্ট্রমন্ত্রী ড. একে আব্দুল মোমেন ও সাবেক অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত।

তিন স্তরের কঠোর নিরাপত্তা বেষ্টনীর মধ্য দিয়ে বিভাগীয় নগরী রংপুরে প্রধান ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়েছে কালেক্টরেট ঈদগাহ ময়দানে। দেশ ও জাতীর অগ্রগতি এবং মুসলিম উম্মার শান্তি কামনায় দোয়া মোনাজাতের মধ্য দিয়ে বরিশালে ঈদের প্রধান জামাত নগরীর হেমায়েত উদ্দিন ঈদগাহ ময়দানে অনুষ্ঠিত হয়।

বৃষ্টির কারণে রাজশাহীতে ঈদের প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত হয়েছে হযরত শাহ মখদুম (রহ:) দরগা মসজিদে। দিনাজপুরের ঐতিহাসিক গোর-এ শহীদ বড় ময়দানে অনুষ্ঠিত হয়েছে দেশের অন্যতম বৃহৎ ঈদের জামাত।

গোপালগঞ্জে সকাল ৮টায় শেক ফজলুল হক মনি স্ট্রেডিয়ামে জামাত অনুষ্ঠিত হয়। জামাত শেষে একে অপরের সাথে কোলাকুলি ও ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময় করেন মুসল্লিরা।

এছাড়া পটুয়াখালী, নেত্রকোণা, ব্রাক্ষ্মণবাড়িয়া, জয়পুরহাট, রাজবাড়ি, ঠাকুরগাঁও, বান্দরবান, চুয়াডাঙ্গা, বরগুনা, চাঁদপুর, পাবনা, সিরাজগঞ্জ, টাঙ্গাইল, নড়াইল, হিলি, নারায়ণগঞ্জ, লক্ষ্মীপুর, গাইবান্ধা রাঙ্গামটি কুড়িগ্রাম  সহ বিভিন্ন জেলায় পালিত হয়েছে পবিত্র ঈদুল ফিতর।

রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ ও তার স্ত্রী রাশিদা খানম ঈদুল ফিতর উপলক্ষে বঙ্গবভনে সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করেন।

সরকারি ও বেসরকারি অফিস ভবনে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়। পাশাপাশি শহরের প্রধান সড়ক ও সড়কদ্বীপগুলো জাতীয় পতাকা এবং বাংলা ও আরবিতে ঈদ মোবারক লেখা পতাকায় সাজানো হয়।

টেলিভিশন চ্যানেল ও রেডিও স্টেশনগুলো বিশেষ অনুষ্ঠানমালা সম্প্রচার করছে।

ঈদ উপলক্ষে কারাগার, হাসপাতাল, সরকারি শিশু কেন্দ্র, ছোটমনি নিবাস ও আশ্রয় কেন্দ্রগুলোতে বিশেষ খাবারের ব্যবস্থা ছিল।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here