সোনালি কুলকার্নি পেয়ার তুনে ক্যায়া কিয়া বা দিল চাহতা হ্যায়’র মতো সিনেমার জন্য বেশ পরিচিতি মুখ। বলিউডের এই অভিনেত্রীর বয়স ৪৪।

আলী আব্বাস জাফর পরিচালিত ‘ভারত’ সিনেমায় সোনালি কুলকার্নিকে দেখা যাচ্ছে সালমান খানের মায়ের চরিত্রে। বাস্তবে তিনি ভাইজানের চেয়ে নয় বছরের ছোট। তবে দর্শকদের বড় অংশ মনে করছেন তাদের মা-ছেলে চরিত্রে ভালোই মানিয়েছে।

আনন্দবাজার পত্রিকা জানায়, ২০০০ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত ‘মিশন কাশ্মীর’ সিনেমায় এক বছরের বড় হৃতিক রোশনের মায়ের ভূমিকায় অভিনয় করেন সোনালি। ওই সিনেমায় তার নায়ক ছিলেন সঞ্জয় দত্ত। ফলে নায়কদের অনস্ক্রিন মা হওয়া এক রকম অভ্যাস হয়ে গিয়েছে নায়িকার।

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে সোনালি বলেন, ‘‘প্রথম যখন ‘ভারত’-এর অফার পেয়েছিলাম, তখন নিজেই ভেবেছিলাম, এই চরিত্রের মান রাখতে পারব তো? কিন্তু আলীর সঙ্গে দেখা হওয়ার পর সব সংশয় কেটে যায়। যেহেতু সালমানের তরুণ ও বৃদ্ধ বয়স দেখানো হয়েছে পর্দায়, তাই আলী চেয়েছিল একজন অভিনেত্রীই হিরোর সব বয়সেরই মায়ের চরিত্র করবেন। আমি সালমানের সঙ্গেও কখনো কাজ করিনি। কেমন লুকস হবে, সেটা নিয়েও টেনশন ছিল। কিন্তু এত ভালো টিমওয়ার্ক, এত ভালো রিসার্চ— দর্শকের প্রশংসা শুনেই বুঝতে পারছি কাজটা ভালো হয়েছে।”

আরও জানান, পর্দায় নায়কের মায়ের চরিত্রে অভিনয় করা নিয়ে কোনো সমস্যা নেই তার। যে কোনো বয়সের চরিত্র হতে পারে। কিন্তু সেখানে তার অভিনয়ের জায়গা কতটা রয়েছে, চুক্তি স্বাক্ষরের আগে শুধু সেটুকু দেখে নেন।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here